বুধবার, ১৫ই জুলাই, ২০২০ ইং ৩১শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

রংপুরে পল্লীনিবাসে জাপার দলীয় নেতাকে মারধোর: নেতাকর্মীদের মাঝে চরম উত্তেজনা ॥ বিক্ষোভ সমাবেশ

news-image

রংপুর ব্যুরো : জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান প্রয়াত হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের বাসভবন পল্লী নিবাসে পার্টির এক প্রবীন নেতাকে মারধোর ও পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছেন সাদ এরশাদ এর ব্যক্তিগত সহকারী। এই ঘটনাকেন্দ্র করে রংপুরে দলীয় নেতাকর্মীদের মাঝে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এ নিয়ে গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে দশটা পর্যন্ত পল্লী নিবাস ঘেরাও করে স্থানীয় জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ সমাবেশ করে ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়েছে। আজ বুধবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে জাতীয় পার্টির সদর আসনের সংসদ সদস্য রাহগীর আল মাহি সাদ এরশাদ মারধোরের ঘটনা অস্বীকার করেছেন।

তিনি পাল্টা অভিযোগ করেছেন তার স্ত্রীসহ তাকে লাঞ্চিত করেছেন দলের মহানগর কমিটির সহ সভাপতি টিপু সুলতানসহ তার সহযোগিরা। এ সময় তার উপস্থিতিতে হামলাকারীরা ভাঙ্গচুরের ঘটনাও ঘটায়। একটি অযৌতিক ও অসম্পূর্ন ‘ডিও লেটারে’ সাক্ষর না করায় তারা ওই হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে। ঘটনার সময় পুলিশ তাকে রক্ষা না করলে বড় ধানের ঘটনা ঘটত বলে তিনি দাবি করেন। হামলার পিছেন তিনি পার্টির মহানগর কমিটির সভাপতিকে ঈঙ্গিত করে বলেন, যারা আমার বিরোধিতা করে আমার কর্মকান্ডে বাঁধা দিচ্ছে এ ঘটনায় তাদের ইন্ধন আছে বলে অভিযোগ করেন। তারা ঘটনার রাতে অস্ত্রশস্ত্রসহ লোকজন নিয়ে পল্লীনিবাসে আশেপাশে অবস্থান করেছিলেন। পুলিশের সতর্কতার কারনে তিনি রক্ষা পেয়েছেন। সাদ এরশাদ সংবাদ সম্মেলনে আরও গুরুতর অভিযোগ করে বলেন, বর্তমান দলের একটি মহল তাকে রংপুরের উন্নয়নমূল কর্মকান্ডে বাঁধা দিচ্ছেন। এ কারনে তিনি রংপুরের উন্নয়নে ঠিকমত কাজ করতে পারছেন না।

সংবাদ সম্মেলনে সাদ এরশাদের স্ত্রী মাহিমা সাদ অভিযোগ করে বলেন, আমার উপস্থিতিতে আমার স্বামীর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় হামলাকারীরা আমাকেও লাঞ্চিত করে জামা ছিড়ে ফেলে। অশ্লালীন ভাষায় গালাগাল করে। সংবাদ সম্মেলনে স্ত্রীসহ সাদ এরশাদ ও তার ব্যক্তিগত সহকারী ইসমাইল হোসেন প্রিন্স এবং গৃহকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
এই উত্তপ্ত পরিস্থিতির মধ্যে বুধবার জেলা কার্যালয়ে জরুরী সভা ডেকে মহানগর কমিটি আন্দোলন কর্মসূচি ঘোষণা করেছে। এরই ধারাবাহিকতায় বুধবার দুপুরে ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচার দাবিতে নগরীতে বিক্ষোভ-সমাবেশ করেছে বিক্ষেুব্ধ নেতাকর্মীরা। ওই সমাবেশ থেকে দলীয় নেতাকে মারধোর করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়ার ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়। ২৪ ঘন্টার মধ্যে সাদ এরশাদের ব্যক্তিগত ইসমাইল হোসেন প্রিন্সসহ তার সহযোগিদের গ্রেফতারের দাবি করে দলীয় নেতা টিপু সুলতানের নিশর্ত মুক্তি দাবি করা হয়।

তা না হলে বৃহত্তর আন্দোলন কর্মসূচির হুমকী দেয়া হয় সমাবেশ থেকে। আনুষ্ঠানিকভাবে এই ঘোষনা দেন সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফার। তিনি এ সময় বলেন, পল্লী নিবাস দলের নেতাকর্মীরা সেখানে পূণ্যভূমি মনে করে যান। অথচ সেখানে দলীয় সংসদ সদস্যের উপস্থিতিতে বহিরাগত সন্ত্রাসীরা দলের মহনগর কমিটির সহ সভাপতি ও ২৭ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি টিপু সুলতানকে মারধোর করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে। যা দলের জন্য কলঙ্কজনক ঘটনা। তিনি অবিলম্বে ইসমাইল হোসেন প্রিন্সসহ তার সহযোগি বহিরাগত সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারের দাবি জানান। তিনি বলেন যদি সাদ এরশাদের বক্তব্য সঠিক হয় তা হলে পুলিশ স্বাধীনভাবে তদন্ত করে ব্যবস্থা নিবে। তাতে দলের কোন নেতাকর্মীরা বাঁধা দিবে না। বিক্ষোভ সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লোকমান হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম, জেলা জাতীয় পার্টির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাজি আব্দুর রাজ্জাক, মহানগর যুব সংহতির সভাপতি শাহীন হোসেন জাকির, জেলা যুব সংহতির সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান নাজিম, মহনগর ছাত্র সমাজের সভাপতি ইয়াসির আরাফাত আসিব, মহানগর সেচ্ছা সেবক পার্টির আহ্বায়ক ফারুক মন্ডল প্রমূখ।

প্রত্যক্ষদর্শী ও জাতীয় পার্টি মহানগর কমিটি সূত্রে জানা গেছে, জাতীয় পার্টির সদর আসনের সংসদ সদস্য রাহগীর আল মাহি সাদ এরশাদ বর্তমান পল্লী নিবাসে অবস্থান করছেন। সেখানে জাতীয় পার্টির মহানগর কমিটির সহ-সভাপতি টিপু সুলতান গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তার কাছে একটি ‘ডিও লেটার’ এ সাক্ষর নিতে যান। এ সময় তাকে দেখা করতে না দিলে এ নিয়ে সংসদ সদস্যের ব্যক্তিগত সহকারী ইসমাইল হোসেন প্রিন্স এর সাথে বাকবিতন্ড হয়। এক পর্যায়ে সাদ এরশাদের উপস্থিতিতে তার ব্যক্তিগত সহকারী ইসমাইল হোসেন প্রিন্স ও ব্যক্তিগত গাড়ি চালক পার্টির ওই নেতাকে মারধোর করে। তার পরে তাকে তাজহাট থানা পুলিশের হাতে তুলে দেন।

এই ঘটনায় তাজহাট থানায় দুটি লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে, একটির বাদি জাতীয় পার্টির ৩২ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি আলতাফ হোসেন এ অভিযোগে সাদ এরশাদের ব্যক্তিগত সহকারী হিসেবে দাবিদার ইসমাইল হোসেন প্রিন্স ও গাড়িচালককে আসামি করা হয়েছে। অপরটির অভিযোগ কারীর নাম জানা যায়নি। ওই অবিযোগের সূত্র ধরে জাপা নেতা টিপু সুলতানকে পুলিশ থানায় আটক রেখেছে বলে তাজহাট থানা পুলিশের ওসি শেখ রোকনুজ্জামান জানিয়েছেন। তিনি বলেন দু’টি অভিযোগ পেয়েছি কোনটি এখন মামলা হিসেবে রেকর্ড করা হয়নি।

মসিউর রহমান রাঙ্গার প্রতিক্রিয়া : 

এই ঘটনায় ব্রিবত করে জাতীয় পার্টির মহসচিব ও বিরোধি দলীয় হুইপ মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেন, পল্লী নিবাসের মাটিতে দলের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের পবিত্র মাজার। সেখানে তিনি চিরনিদ্রায় ঘুমিয়ে আছেন। এটি জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীদের পবিত্র পূণ্যভূমি। সেখানে কেউ দলের কোন নেতাকর্মীকে লাঞ্চিত করবে তা মেনে নেয়া যায়না। এটি ক্ষমার অযোগ্য কাজ। দলের যে কোন নেতা ভুল করলে তা দলের ভেতর বিষয়টি দেখা হবে। প্রয়োজনে শাস্তি দেয়া হবে। কিন্তু বহিরাগত সন্ত্রাসী দিয়ে দলের কোন নেতাকে মারধোরের ঘটনা বিষ্ময়কর ঘটনা। তিনি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে ঘটনার সাথে যেই জড়িত হোক তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পুলিশের প্রতি আহ্বান জানান। আর যদি সাদ এরশাদের বক্তব্য সত্য হয়ে থাকে তাও পুলিশ তদন্ত করে ব্যবস্থা নিবে এতে পার্টির কোন হস্থক্ষেপ হাকবে না। সাদ এরশাদ দলের নির্বাচিত সংসদ সদস্য তাকে কেউ লাঞ্চিত করবে পার্টি সেটিকে বিনা চ্যালেঞ্জে ছেড়ে দিবে না।

তাই জাতীয় পার্টির দূর্গ রংপুরে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কেউ যেন কোন অসৎ উদ্দেশ্য হাসিল না করে বি বিষয়টি দলের নেতাকর্মীকে সতর্কভাবে দেখার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এ জাতীয় আরও খবর

সাহেদ বোরকা পরে নৌকায় পালিয়ে যাবার চেষ্টা করেছিল

সাহেদকে আটক করেছে র‍্যাব

কক্সবাজার সৈকতে যুবকরা প্রাণ বাঁচাল আটকেপড়া ১৬০ কচ্ছপের

বহু দেশ করোনা প্রতিরোধে ভুল পথে এগোচ্ছে : বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

গাড়িবহরে হামলায় পাকিস্তানে ৮ সেনা নিহত

রিজেন্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসুদ পারভেজ গ্রেফতার

মুখোমুখি করা হবে ডা. সাবরিনা ও আরিফকে

বগুড়ায় আ’লীগের সাহাদারা বিপুল ভোটে বিজয়ী

স্বাস্থ্যবিধি না মানায় বিমানকে ১ কোটি টাকা জরিমানা করেছে সৌদি আরব

শনিবার থেকে স্টেডিয়ামেই অনুশীলন করতে পারবেন ক্রিকেটাররা

নাটকেই স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছেন চিত্রনায়িকা মৌমিতা মৌ

রমেকে নমুনা পরীক্ষায় আরও ৩৮ জন আক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত